শাহনাজ খুশি ও বৃন্দাবন দাস এর অভাবী সংসারের গল্প

অভাবগ্রস্ত সংসারের অভিজ্ঞতা লিখেছেন বৃন্দাবন দাসের স্ত্রী শাহনাজ খুশি। পড়েই দেখুন
আমরা দুজনই মোটামুটি বেশ স্বচ্ছল পরিবারের ছিলাম।
অন্তত মাছ /মাংস ছাড়া ভাত খাইনি কোনদিন।
আমাদের সংসারের একদম শুরুর দিকে মাত্র ২০০০ হাজার টাকা বেতনে চাকুরী করতো বৃন্দাবন ।
১৪০০ টাকা ঘর ভাড়া,বাকী ৪০০ টাকা পাশের মুদি দোকানে জমা দিয়ে মাসের চাল আর তেল নুন নিতাম।
২০০ টাকা হাত খরচ রাখতাম থিয়েটারের জন্য।
বেশীর ভাগ সময় রির্হাসেলে হেঁটে যেতাম।ফেরার পথে রিক্সায়।
মুদি দোকানে তখন তরকারী বলতে ছিল আলু আর পেঁপে।যেহেতু পেঁপের দাম ছিল কম(২ টাকা কেজি)তাই একমাত্র পেঁপেই নিতাম।আমার মনে আছে,৭মাস পেঁপে ভর্তা ছাড়া কিছু খাইনি ।
হঠাৎ একদিন অফিস থেকে ফিরে বৃন্দাবন খুবই বেদনার্ত ভাবে কান্না করতে লাগলো,কান্নার ব্যকুলতা বোঝানো যাবে না,এখনো মনে হলে আমার চোখ ভিজে যায় !সেই সাথে একি কথা,”তুমি আমাকে ক্ষমা করে দাও…..”।
আমি যতোই বলি কি হয়েছে,সেএকই কথা বলে আর কাঁদে ! অনেক পরে শান্ত হলে জানলাম,সে যেহেতু তার বসের পিএ ছিল,বসের একটা লেখা পৌঁছে দেবার জন্য সে মেট্রোপলিটন হোটেলের একটা সেমিনারে গিয়েছিল।
লান্চ টাইম হওয়ায় তাকে বসের পক্ষে লান্চ খেতে হয়েছে।সে খাবারে মাছ মাংস দুই ছিল !
যেহেতু আমরা ৬/৭ মাসের বেশী মাছ মাংস খেতে পারি না অর্থ সংকটের জন্য,সে কারনে এই বিলাশী খাবার খেয়ে সে নিজেকে ক্ষমা করতে পারে নাই……………………
বৃন্দাবন,পরবর্তী জীবনের দিনগুলোর সীমাহীন না পাওয়া চোখ বন্ধ করে পাড়ি দিতে পেরেছি এমন কিছু দরদী সত্যের জন্য।
তুমি নাই,অথচ তোমার জন্ম তারিখ আছে,এমনদিন যেন আমার জীবনে দেখতে না হয়।তোমার দীর্ঘায়ু আমার আজ একমাত্র শুভাশিষ।শুভ জন্মদিন…
-শাহানাজ খু্শি

Views All Time
Views All Time
155
Views Today
Views Today
1

Comments

comments

Author: cinemanewsbd

রিয়াদ তানভির রাজ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *